শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৭:৩৬ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ
       
শিরোনাম :

সঞ্চালন লাইন ছিদ্র হয়ে বেড়িয়ে যাচ্ছে গ্যাস, আতংক এলাকাবাসী

নিজস্ব প্রতিবেদক, সোনারগাঁও নিউজ :
ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁওয়ে তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন এন্ড ডিষ্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের সঞ্চালন লাইন ছিদ্র হয়ে বেড়িয়ে যাচ্ছে গ্যাস।

৪ সেপ্টেম্বর সোমবার ভোর থেকে উপজেলার সোনাখালী ব্রীজ এলাকায় এ গ্যাস বের হচ্ছে বলে জানিয়েছে এলাকাবাসী।

তিতাস কর্তৃপক্ষকে একাধিকবার অবগত করা হলেও তেমন কোন সাড়া মেলেনি। এ নিয়ে এলাকাবাসী আতংকের মধ্যে রয়েছে। গ্যাস বের হয়ে যাওয়ার কারণে গ্যাসের গন্ধে এলাকায় ঝাঁঝালো হয়ে উঠেছে ওই এলাকা।

জানা যায়, মহাসড়কের পাশ দিয়ে ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম ১৬ ইঞ্চি ব্যাসার্ধে পাইপ দিয়ে গ্যাস সঞ্চালন করে থাকে তিতাস কর্তৃপক্ষ। এ পাইটি উপজেলার মোগরাপাড়া ইউনিয়নের সোনাখালী ব্রীজের পাশে ছিন্দ্র হয়ে অনবরত গ্যাস বের হচ্ছে। তিতাস কর্তৃপক্ষ লাইনটি পানিতে থাকার কারনে তাৎক্ষণিক সমাধান করতে পারছে না বলে জানিয়েছেন। তবে অভিজ্ঞ টেকনিক্যাল দল দিয়ে এ সমস্যা সমাধানের জন্য উর্ধ্বতন কর্মকর্তাকে চিঠি দিয়ে অবগত করেছেন। এদিকে গ্যাস সঞ্চালন লাইনে ছিন্দ্র হয়ে গ্যাস বের হওয়ার কারণে এলাকাবাসী এক প্রকার আতংকের মধ্যে রয়েছেন। যে কোন সময় বড় ধরনের দূর্ঘটনার সম্মুখিন হতে হবে বলে জানিয়েছেন তারা। সেখানে তারা আগুনের আতংকে রয়েছেন।

জাইদেরগাঁও গ্রামের বাসিন্দা আনোয়ার হোসেন বলেন, সোমবাস ভোর থেকে গ্যাসের সঞ্চালন লাইন দিয়ে অবিরাম গ্যাস বের হচ্ছে। সকালের দিকে পানির মধ্যে গতিবেগ কম থাকলেও বিকেলের দিকে তার দ্রæত গতিতে বের হচ্ছে। যে কোন সময় বড় ধরণের দূর্ঘটনা ঘটতে পারে।

সোনাখালী এলাকার মুদি দোকানী আশরাফুল আলম সোনারগাঁও নিউজকে বলেন, গ্যাস লাইন ছিদ্র থেকে যেভাবে গ্যাস বের হচ্ছে, পুরো এলাকায় গ্যসের গন্ধে ঝাঁঝালো হয়ে আছে। একাধিকবার গ্যাসের লোকজনকে ফোন দেওয়া হলেও তারা একবারের জন্যও আসেনি। এখন সমস্যা ছোট। সমাধান দরকার। বড় ধরণের দূর্ঘটনা ঘটলে দায় কে নেবে?।

সোনারগাঁও থানার পরিদর্শক তদন্ত মোহাম্মদ আহসান উল্লাহ সোনারগাঁও নিউজকে বলেন, গ্যাস লাইনের সমস্যা বিষয়ে এলাকাবাসী অবগত করেছেন।  বিষয়টি তিতাসকে জানানো হয়েছে।
সোনারগাঁ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন কর্মকর্তা সুজন কুমার হালদার বলেন, ছোট থেকে বড় ধরনের দূর্ঘটনা ঘটে থাকে। অল্প থেকে সেগুলো সমাধান করা উচিত। গ্যাস সঞ্চালন লাইনে ছিদ্্র হওয়ার বিষয়টি আমাদের কেউ অবগত করেনি।
তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন এন্ড ডিষ্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের

মেঘনা ঘাট জোনের ব্যবস্থাপক মো. মনিরুজ্জামান বলেন, গ্যাসের সঞ্চালন লাইন থেকে গ্যাস বের হওয়ার বিষয়টি জেনেছি। ছিদ্র স্থানটি পানিতে থাকার কারনে আমাদের পক্ষে এখন সমাধান সম্ভব না। অভিজ্ঞ টেকনিক্যাল দল দিয়ে সামাধান করার জন্য চিঠি দিয়েছি। আশা করি সমাধান হয়ে যাবে।

পোস্টটি শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © Sonargaonnews 2022
Design & Developed BY N Host BD